বৃহস্পতিবার, ৬ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সব

Singapore
Corona Update

Confirmed Recovered Death
59,879 59,746 29

Bangladesh
Corona Update

Confirmed Recovered Death
543,717 492,059 8,356

খায়ের সামাদী: আরও একটি নক্ষত্রের পতন

অনলাইন ডেস্ক | ১৪ এপ্রিল ২০২১ | ৯:৫৩ অপরাহ্ণ
খায়ের সামাদী: আরও একটি নক্ষত্রের পতন

“আমাদের মুখ মনুষ্যত্বের প্রতিনিধিত্ব করে না
তাই ঢেকে দেওয়া হয়েছে ‘
আজ সকালে আমার জানালার পাশে দাঁড়িয়ে চিৎকার করে
বলে গেলো আমাদের মিরপুরের আধপাগলা হরিমোহন বাউল।
কয়েক পা এগিয়ে যেতে যেতে আবার ফিরে তাকিয়ে বললো:
মাস্টার, বোঝ নাই আমার কথা?
ভাবো, ভাবো হে, ভালো করে ভাবো।
আমি দাঁড়িয়ে রইলাম জানালার শিক ধরে।”

কবিতা, ইতিহাস, সাহিত্য, প্রবন্ধ আর কিছুই লিখবেন না তিনি, গাইবেন না আর কোন গান! সদা হাস্যোজ্জ্বল মানুষটি আর পা রাখবেন না তার প্রিয় শিক্ষালয়ে, অভিভাবকসুলভ ভঙ্গীতে আর শাসন করবেন না প্রিয় শিক্ষার্থীদের। করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে সময়ের আগেই চলে গেলেন সরকারি বাঙলা কলেজের বাংলা বিভাগের বিভাগীয় প্রধান প্রফেসর মোহাম্মদ আবুল খায়ের (খায়ের সামাদী)। আজ সকাল ১০টায় রাজধানীর একটি বেসরকারি হাসপাতালের আইসিইউতে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়…(ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন)।

banglarkantha.net

অধ্যাপক মোহাম্মদ আবুল খায়ের, যিনি খায়ের সামাদী নামে সমধিক পরিচিত ছিলেন। ব্যক্তিজীবন, কর্মজীবনে একজন শিক্ষক, লেখক, শিল্পী, গবেষক, শিল্পবোদ্ধা মানুষ হিসেবে তিনি আজীবন আলোর বিচ্ছুরণ ঘটিয়েছেন প্রজন্ম থেকে প্রজন্মের হৃদয়ভ‚মিতে। ‘জীবনকে শিল্পের মতোই সুন্দর ও শোভন করা যায়। আর তাতেই জীবনের তৃপ্তি, আনন্দ ও পরিপূর্ণতা’ এই দর্শনকে ধারণ করেই শিক্ষার্থীবান্ধব শিক্ষক হিসেবে সবসময়েই বিরাজমান ছিলেন প্রথম সারিতে।

banglarkantha.net

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার নরসিংসার গ্রামের গর্বিত সন্তান আবুল খায়ের সরকারি তিতুমীর কলেজ থেকে পড়াশোনা শেষ করে বাংলা সাহিত্যে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে সম্মানসহ স্নাতকোত্তর ডিগ্রী অর্জন করেন। ১৪তম বিসিএস এর মাধ্যমে তিনি শিক্ষকতা পেশায় যুক্ত হন। যশোর সরকারি সিটি কলেজ, সরকারি বাংলা কলেজ, নরসিংদী সরকারি কলেজ, ব্রাহ্মণবাড়িয়া সরকারি কলেজ, সরকারি সঙ্গীত কলেজ, মাউশি সহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানে নিষ্ঠার সাথে দায়িত্ব পালন করেছেন। লেখক হিসেবে পদাচারণা ছিল সঙ্গীত, আত্মউন্নয়ন, সুফিতত্ত¡ ও নন্দনতত্ত¡ বিষয়ে। জাতীয় ও স্থানীয় পত্র-পত্রিকাগুলোর বিভিন্ন সাহিত্য-সাময়িকীতে নিয়মিত লেখালেখি করতেন। ‘বুকের হাসি: হৃদরোগীদের জীবনধারা’, ‘নজরুলসঙ্গীতে নান্দনিকতা ও সমকালীন ব্যবহারিক বাংলা’, ‘পাশ্চাত্য সাহিতত্ত¡ ও সাহিত্য সমালোচনা পদ্ধতি’, ‘দাঁড়াও ছাত্র আমার’ শীর্ষক কয়েকটি রচনা গ্রন্থাকারে প্রকাশিত হয়েছে। চলতি বছরের বই মেলায় তাঁর রচিত ‘সুফিকোষ’ বইটি ব্যাপক সমাদৃত হয়েছে!

শিক্ষার্থী, সতীর্থ, আত্মীয় পরিজনদের আলোর দিশারী আজ আলোর পিছনে অন্ধকারে হারিয়ে গেলেন, জ্ঞান সাধনা, মানবিকতা আর প্রজ্ঞার আলোতে রেখে গেলেন তাঁর মহৎ কর্ম ও ভালোবাসা সিক্ত অসংখ্য ভক্তক‚ল। তাঁর মৃত্যুতে বাংলার কণ্ঠ পরিবার গভীরভাবে শোকাহত। মরহুমের শোক সন্তপ্ত পরিবারের প্রতি রইলো সমবেদনা। মহান আল্লাহ তাদের এই শোক সইবার শক্তি দিন।

Facebook Comments Box

সর্বশেষ
সর্বাধিক পঠিত
এ বিভাগের আরও খবর
আর্কাইভ
শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
১০১১১২১৩১৪
১৫১৬১৭১৮১৯২০২১
২২২৩২৪২৫২৬২৭২৮
২৯৩০৩১